ঢাকা   মঙ্গলবার ২১ মে ২০১৯ | ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Image Not Found!

সর্বশেষ সংবাদ

  আজ ঢাকায় আসছেন গাম্বিয়ার পররাষ্ট্রমন্ত্রী (জাতীয়)        নিরাপদ খাদ্যের বিষয়ে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না: হাইকোর্ট (জাতীয়)         ধান পোড়ানোর ঘটনা পরিকল্পিত: খাদ্যমন্ত্রী (জাতীয়)        মালয়েশিয়ায় শ্রমিক পাঠানোর বিষয়ে বৈঠক চলতি মাসেই (জাতীয়)        খালেদাকে কেরাণীগঞ্জ কারাগারে স্থানান্তরে বিএনপির খুশি হওয়ার কথা: তথ্যমন্ত্রী (রাজনীতি)         সরকার মাদক নিয়ন্ত্রণে সব ধরনের প্রচেষ্টা চালিয়ে যাবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী (জাতীয়)        ঢাকায় শিশু হাসপাতালের শৌচাগার থেকে নবজাতক উদ্ধার (ঢাকা)        চিকিৎসার জন্য লন্ডন গেলেন রাষ্ট্রপতি (জাতীয়)        মোংলা বন্দরের সক্ষমতা বাড়াতে নানামুখী উদ্যোগ (বিবিধ)        চিকিৎসক-নার্সদের ঢাকায় বদলির তদবির গ্রহণ করা হবে না: স্বাস্থ্যমন্ত্রী (জাতীয়)      

ঈদের ৭ দিন আগে মহাসড়ক মেরামতের কাজ শেষ করার নির্দেশ

Logo Missing
প্রকাশিত: 11:14:37 pm, 2019-05-14 |  দেখা হয়েছে: 2 বার।

আজ ডেক্সঃ আসন্ন ঈদুল ফিতরে মহাসড়কে যাতায়াত নির্বিঘœ করতে ব্যাপক পরিকল্পনা নিয়েছে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়। ইতোমধ্যে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের কাছে ৩২ দফা নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। সংশ্লিষ্ট সব প্রকৌশলীকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে ঈদের সাত দিন আগে মহাসড়ক মেরামতের কাজ শেষ করতে। গত ৯ মে মন্ত্রণালয়ের সড়ক ও মহাসড়ক বিভাগের সহকারী সচিব লিয়াকত আলী স্বাক্ষরিত নির্দেশনা সংশ্লিষ্ট সব প্রকৌশলীর কাছে পৌঁছে দেওয়া হয়। মন্ত্রণালয়ের ওয়েবসাইটে প্রকাশিত নির্দেশনায় বলা হয়, ঈদে নির্বিঘœ যাতায়াত ও যানজটমুক্ত করতে সাত দিন আগে মহাসড়ক মেরামতের কাজ সম্পন্ন করতে প্রধান প্রকৌশলী, অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী, সব সড়ক জোন ও নির্বাহী প্রকৌশলীকে (সব সড়ক) প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে। জাতীয় ও আঞ্চলিক মহাসড়ক যানজটমুক্ত রাখতে হাইওয়ে পুলিশসহ সংশ্লিষ্ট সবাইকে কার্যকর ব্যবস্থা নিতে নির্দেশ দেওয়া হয়। এছাড়াও ঢাকার তিনটি প্রধান বাস টার্মিনালে যাতায়াত সচল রাখতে বিআরটিএ, মালিক ও শ্রমিকদের সমন্বয়ে ভিজিলেন্স টিম গঠন করার কথাও বলা হয়েছে। এ বিষয়ে সহকারী সচিব লিয়াকত আলী বলেন, ঈদে ঘরমুখো মানুষের যাত্রা নিরাপদ করতে ৩২ দফা নির্দেশনা দিয়ে সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের তা বাস্তবায়ন করতে বলা হয়েছে। এদিকে, জাইকার অর্থায়নে চলমান চট্টগ্রামের আগ্রাবাদ সংযোগ সড়ক ও পোর্ট কানেকটিং সড়কের কার্পেটিং লেয়ারের কাজ ঈদের আগেই শেষ হবে বলে জানিয়েছেন চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন। চসিক কনফারেন্স হলে নাগরিক উদ্যোগ এর নেতৃবৃন্দের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় তিনি এ আশ্বাস দেন। এ দুই সড়কের কাজ নিয়মিত মনিটরিং করার কথা উল্লেখ করে মেয়র বলেন, সড়ক দুটির কাজের অগ্রগতি দেখার জন্য আমি নিয়মিত পরিদর্শন করি। এই প্রকল্পে যারা দায়িত্বে নিয়োজিত আছেন, তাদের সঙ্গে নিয়মিত বৈঠক করি এবং কাজ দ্রুত সময়ের মধ্যে সম্পন্ন করার জন্য আমি তাদেরকে বিভিন্ন দিকনির্দেশনা প্রদান করে যাচ্ছি। নগরের ব্যস্ততম সড়ক হিসেবে পরিচিত আগ্রাবাদ সংযোগ সড়কের বেপারীপাড়া থেকে পোর্ট কানেকটিং রোডের দক্ষিণাংশ এবং পোর্ট কানেকটিং রোডের নিমতলা থেকে ওয়াপদা পর্যন্ত রাস্তার পূর্বাংশে বর্তমানে দ্রুত গতিতে কাজ চলছে বলে সভায় জানানো হয়। রাস্তা দুটি গাড়ী চলাচলের উপযোগী করতে এবং বর্যা মৌসুমে জনচলাচলে ভোগান্তি লাঘবে চসিক কাজ করে যাচ্ছে বলেও জানান মেয়র। এর আগে নাগরিক উদ্যোগ এর আহ্বায়ক খোরশেদ আলম সুজন চসিক মেয়রের কাছে ১৪টি দাবি উত্থাপন করেন। এ দাবিগুলোর মধ্যে আগ্রাবাদ এক্সেস রোড এবং নিমতলা বিশ্বরোডের অসমাপ্ত উন্নয়নকাজ দ্রুত শেষ করার আহবান জানানো হয়। এ সময় উপস্থিত ছিলেন হাজী মো. ইলিয়াছ, মো. কামাল মেম্বার, হাজী হোসেন কোম্পানী, হাবিবুর রহমান, নিজাম উদ্দিন, আবদুল আজিম, এজাহারুল হক, মোসাদ্দেক হোসেন বাহাদুর, মো. শাহজাহান, পংকজ চৌধুরী কংকন, জাহেদ আহমদ চৌধুরী, সোলেমান সুমন, সমীর মহাজন লিটন, শেখ মামুনুর রশীদ, জাহাঙ্গীর আলম, সফি আলম বাদশা, স্বরূপ দত্ত রাজু, মো. ওয়াসিম, মাহফুজ চৌধুরী, শিশির কান্তি বল, শেখ সরওয়ার্দী এলিন, রকিবুল আলম সাজ্জী, রাজীব হাসান রাজন, এম ইমরান আহমেদ ইমু, দীপংকর সোম, মনিরুল হক মুন্না, হাসান মুরাদ প্রমুখ।