ঢাকা   রবিবার ৩১ মে ২০২০ | ১৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
Image Not Found!

সর্বশেষ সংবাদ

  জামালপুরে ৬শ অসহায় পরিবারকে বিজিবির ত্রাণ বিতরণ (জামালপুরের খবর)        জামালপুরবাসীর স্বাস্থ্যসেবায় নিজেকে বিলিয়ে দিতে চাই: আশরাফুল ইসলাম বুলবুল (জামালপুরের খবর)        করোনা দুর্যোগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা মানুষের সমস্যা নিজের কাঁধে তুলে নিয়েছেন-মির্জা আজম এমপি (জামালপুরের খবর)        গন্তব্যে পৌছবে কি ছানুর নৌকা (জামালপুরের খবর)        বেতন ও বোনাসের টাকায় ঈদ সামগ্রী নিয়ে দেড়শ মধ্যবিত্ত পরিবারের পাশে দাঁড়ালেন কিরন আলী (জামালপুরের খবর)        জামালপুরে ভাগ্য বিড়ম্বিত শিশুদের মাঝে ঈদ উপহার ও খাদ্য সামগ্রী বিতরণ। (জামালপুরের খবর)        জামালপুরে তরুনদের সহায়তায় দুইশত পরিবারের মাঝে ঈদ সামগ্রী বিতরণ (জামালপুরের খবর)        ময়মনসিংহে ৩শ দরিদ্র পরিবারের মাঝে সেনা প্রধানের ঈদ উপহার পৌঁছে দিলেন আর্টডক সদস্যরা (ময়মনসিংহ)        করোনা যোদ্ধা নার্সিং সুপারভাইজার শেফালী দাস শ্বাসকষ্টে মারা গেছেন (ময়মনসিংহ)        বিদ্যানদীর মত সকল সামাজিক সংগঠন যদি এই দুর্যোগের সময়ে এগিয়ে আসে তবে সরকারের উপর চাপ অনেকংশে কমে যাবে -মির্জা আজম এমপি (জামালপুরের খবর)      

ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে মেগা প্রকল্প নেওয়া হচ্ছে: সিঙ্গাপুর থেকে ফিরে মেয়র খোকন

Logo Missing
প্রকাশিত: 12:36:21 am, 2019-09-19 |  দেখা হয়েছে: 3 বার।

আ.জা. ডেক্স: ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে পাঁচ বছর মেয়াদী মেগা প্রকল্প নিতে যাচ্ছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন (ডিএসসিসি)। এই প্রকল্প বাস্তবায়নে সিঙ্গাপুরের পরিবেশ ও স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এবং স্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটের সঙ্গে একটি সমঝোতা চুক্তি করা হবে। গতকাল বুধবার ডিএসসিসির সম্মেলন কক্ষে ডেঙ্গু প্রতিরোধে সিঙ্গাপুর সফরের অর্জিত অভিজ্ঞতা বিনিময় করতে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব কথা বলেন মেয়র সাঈদ খোকন। তিনি বলেন, দক্ষিণ সিটি করপোরেশন ডেঙ্গুর ব্যবস্থাপনা, নিয়ন্ত্রণ, নির্মূল ও স্থায়ী সমাধানের মধ্য দিয়ে ঢাকাবাসীর জীবনের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে পাঁচ বছর মেয়াদী একটি প্রকল্প নিতে যাচ্ছে। এই প্রকল্পের আওতায় সিটি করপোরেশনের জনবল কাঠামো সংশোধনের মাধ্যমে ‘কমিউনিকেবল ডিজিজ কন্ট্রোল অ্যান্ড রিসার্চ ডিপার্টমেন্ট’ নামে একটি বিভাগ খোলা হবে। সাঈদ খোকন বলেন, দু’টি বিষয়কে সুচারু ভাবে সম্পন্ন করার লক্ষ্য নিয়ে দক্ষিণ সিটি করপোরেশন সিঙ্গাপুর সরকারের সঙ্গে যোগাযোগ করে। ইতিবাচক সাড়া পাওয়ার পর আমরা সে দেশে যাই। গত ১০ ও ১১ সেপ্টেম্বর সিঙ্গাপুরের পরিবেশ ও স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এবং স্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটের সঙ্গে নলেজ শেয়ারিং সেশন অনুষ্ঠিত হয়। মেয়র বলেন, আমরা সেখানে মতবিনিময় সভার মাধ্যমে তাদের অভিজ্ঞতা জানা ও বোঝার চেষ্টা করি। তাদের যেসব ল্যাব রয়েছে, সেখানে কীভাবে গবেষণা করেন, তা আমাদের হাতে-কলমে দেখানো হয়। তিনি বলেন, সেখানে পরিবেশ মন্ত্রণালয়ের একটি গুরুত্বপূর্ণ ভ‚মিকা রয়েছে। তারা ডেঙ্গু ম্যানেজমেন্ট, কন্ট্রোল, প্রিভেনশন, রিস্ক অ্যানালাইসিস ও রেগুলেশনের কাজ করে থাকে। একই সঙ্গে, তাদের স্বাস্থ্য বিভাগ কেস ম্যানেজমেন্ট করে। দু’দিনের মত ও অভিজ্ঞতা বিনিময় সেশনগুলো অত্যন্ত ফলপ্রসূ হয়েছে। সাঈদ খোকন বলেন, আমরা সিঙ্গাপুর সরকারের সঙ্গে সমঝোতা চুক্তির মাধ্যমে দেশটির পরিবেশ ও স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় এবং স্বাস্থ্য ইনস্টিটিউটের সঙ্গে দীর্ঘ মেয়াদে কাজ করতে সম্মত হয়েছি। কারিগরিসহ অন্য অভিজ্ঞতা, তথ্য-উপাত্ত বিনিময়ের মধ্য দিয়ে ভবিষ্যতে যেন ঢাকাবাসীকে রক্ষা করতে পারি, সে কারণে এই চুক্তি করতে একমত হয়েছি। সেপ্টেম্বরের তৃতীয় সপ্তাহ চললেও ডেঙ্গুর প্রাদুর্ভাব এখনো শূন্যের কোটায় নামেনি। ঢাকায় ডেঙ্গুর প্রকোপ উল্লেখযোগ্যভাবে কমে এসেছে। সারাদেশে ডেঙ্গু থাকলেও তা অনেকটাই নিয়ন্ত্রণে বলে জানান সাঈদ খোকন। সিঙ্গাপুরের ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণ কার্যক্রম তুলে ধরেন ডিএসসিসির প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ডা. মো. শরীফ আহমেদ। তিনি বলেন, এনভায়রনমেন্টাল হেলথ ইনস্টিটিউট অব সিঙ্গাপুরের সঙ্গে ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে সবশেষ তথ্য বিনিময়, প্রযুক্তির ব্যবহার, কারিগরি সহায়তা ও প্রশিক্ষণ নিয়ে এই চুক্তির আলোচনায় তারা সম্মত হয়েছে। অক্টোবরের শেষ সপ্তাহে তারা একটি প্রশিক্ষণ কর্মসূচি শুরু করবে। সেখানে অংশগ্রহণের জন্য আমাদের আমন্ত্রণ জানিয়েছে। আমরা প্রশিক্ষণে অংশ নিতে ইতিবাচব মনোভাব দেখিয়েছি। ডেঙ্গু নিয়ন্ত্রণে দীর্ঘমেয়াদী ও টেকসই পরিকল্পনার জন্য পাঁচ বছর মেয়াদী একটি প্রকল্পের ডিপিপি প্রণয়নের কাজ ইতোমধ্যে শুরু করেছে ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন। ডেঙ্গু প্রতিরোধে একটি দীর্ঘস্থায়ী ও টেকসই পরিকল্পনা প্রণয়নের লক্ষ্যে ডিএনসিসি মেয়রের নেতৃত্বে গত ৮ সেপ্টেম্বর সিঙ্গাপুর যান একটি প্রতিনিধি দল। এ দলে আরও ছিলেন ডিএসসিসি প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) মোস্তাফিজুর রহমান এবং প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ব্রিগেডিয়ার জেনারেল শরিফ আহমেদ।