ঢাকা   বৃহস্পতিবার ১২ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Image Not Found!

সর্বশেষ সংবাদ

  সদর উপজেলাবাসীর আশার আলো উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফরিদা ইয়াছমিন (জামালপুরের খবর)        বকশিগঞ্জ উপজেলায় স্থানীয় সরকার ও প্রশাসনের সাথে জনতার সংলাপ (জামালপুরের খবর)        জামালপুরে বাল্যবিয়ে প্রতিরোধে বিতর্ক প্রতিযোগিতা (জামালপুরের খবর)        খালেদা জিয়ার জামিনের বিষয়ে হস্তক্ষেপ করছেনা সরকার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী (জামালপুরের খবর)        বাল্যবিবাহ মুক্ত ময়মনসিংহ বিভাগ ঘোষণা করায় ইসলামপুরে র‌্যালি ও মানববন্ধন (জামালপুরের খবর)        দেওয়ানগঞ্জে জাতীর পিতার জন্ম শত বার্ষিকী উপলক্ষে র‌্যালি, মানববন্ধন, গন স্বাক্ষর ও শপথ গ্রহন (জামালপুরের খবর)        কুষ্ঠ রোগীদের ওষুধ তৈরী ও বিনামূল্যে বিতরণে স্থানীয় কোম্পানীগুলোর প্রতি আহবান প্রধানমন্ত্রীর (জাতীয়)        খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্যের আসল রিপোর্ট বদলে ফেলা হচ্ছে: ফখরুল (রাজনীতি)        অভিযোগ প্রমাণে শাজাহান খানকে ফের ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটাম ইলিয়াস কাঞ্চনের (ঢাকা)        আওয়ামী লীগে কোনও দূষিত রক্ত থাকবে না: ওবায়দুল কাদের (রাজনীতি)      

নরসিংদীতে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে কলেজছাত্রীকে ধর্ষণ, আটক ১

Logo Missing
প্রকাশিত: 09:48:01 pm, 2019-11-03 |  দেখা হয়েছে: 4 বার।

আ.জা. ডেক্স:

নরসিংদীর শিবপুর উপজেলায় চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে এক কলেজছাত্রীকে গণধর্ষণ করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। শুক্রবার দিবাগত রাতে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে গত শনিবার রাতে রাকিব মিয়া (২০) নামের এক যুবককে আটক করেছে পুলিশ। আটক রাকিব শিবপুরের সৃষ্টিগড় গ্রামের বাসিন্দা। এ ঘটনায় একই এলাকার আরিফ (২৫) নামের আরো একজন পলাতক। ধর্ষণের শিকার ওই তরুণী স্থানীয় একটি কলেজের শিক্ষার্থী। গত শনিবার বিকেলে তাঁকে নরসিংদী সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। শিবপুর থানা পুলিশ জানিয়েছে, কিছুদিন আগে আরিফ মিয়া (২৫) ওই তরুণীকে ফোন দিয়ে চাকরির প্রলোভন দেখান। ওই সময় নিজেকে একটি কোম্পানির মালিক বলে পরিচয় দেন আরিফ। চাকরির আশ্বাস দিয়ে গত শুক্রবার প্রয়োজনীয় কাগজপত্র নিয়ে ওই তরুণীকে দেখা করতে বলেন তিনি। কথা অনুযায়ী ওই তরুণী শিবপুরের বড়ইতলা এলাকায় স্যামসাং কারখানার সামনে অপেক্ষা করতে থাকেন। এ সময় আরিফ তাঁকে পণ্য প্রচারের জন্য সেলসম্যান হিসেবে কাজের প্রস্তাব দেন। পরে ওই তরুণীকে নিয়ে একটি মাইক্রোবাসে করে আরিফ ও তাঁর সহযোগী রাকিব কিশোরগঞ্জের বিভিন্ন এলাকায় ঘোরাঘুরি করেন।

পরে শিবপুরের একটি এলাকায় নিয়ে ওই তরুণীকে লাথি দিয়ে গাড়ি থেকে ফেলে মুখ বাঁধেন আরিফ ও রাকিব। পরে এলাকার একটি নির্জন জঙ্গলে ওই তরুণীকে ধর্ষণ করেন। রাতভর ধর্ষণ শেষে গত শনিবার সকালে জঙ্গলের পাশের একটি বাড়িতে নিয়ে আটকে রাখা হয় ওই তরুণীকে। পরে সেখান থেকে কৌশলে পালিয়ে স্থানীয় এক ব্যক্তির সহায়তায় শিবপুর মডেল থানায় যান ওই তরুণী। পরে তাঁকে প্রথমে শিবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও পরে বিকেলে নরসিংদী সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়। এ ঘটনায় পুলিশ অভিযুক্ত রাকিবকে আটক করলেও আরিফ পলাতক। ধর্ষণের শিকার ওই তরুণীর মা বলেন, শুক্রবার মেয়েকে চাকরি দেওয়ার কথা বলে ডেকে নেয় আরিফ। কিন্তু সন্ধ্যা হয়ে রাত পেরিয়ে গেলেও মেয়ের কোনো খোঁজ পাচ্ছিলাম না। সারা রাত মোবাইলে চেষ্টা করেও পাইনি। গত শনিবার দুপুরে তাঁকে শিবপুর হাসপাতালে নেওয়ার পর আমরা ঘটনা জানতে পারি। শিবপুর মডেল থানার ওসি মোল্লা আজিজুর রহমান বলেন, এ ঘটনায় গত শনিবার বিকেলে সৃষ্টিগড় এলাকা থেকে রাকিব নামের এক অভিযুক্তকে আটক করা হয়েছে। তিনি প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছে। এ ঘটনায় মামলার প্রক্রিয়া চলছে। ধর্ষণের শিকার তরুণীর মৌখিক অভিযোগের ভিত্তিতে অভিযুক্তকে আটক করা হয়। আর তরুণীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য নরসিংদী সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।