ঢাকা   বৃহস্পতিবার ১২ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৮ অগ্রহায়ণ ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Image Not Found!

সর্বশেষ সংবাদ

  সদর উপজেলাবাসীর আশার আলো উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফরিদা ইয়াছমিন (জামালপুরের খবর)        বকশিগঞ্জ উপজেলায় স্থানীয় সরকার ও প্রশাসনের সাথে জনতার সংলাপ (জামালপুরের খবর)        জামালপুরে বাল্যবিয়ে প্রতিরোধে বিতর্ক প্রতিযোগিতা (জামালপুরের খবর)        খালেদা জিয়ার জামিনের বিষয়ে হস্তক্ষেপ করছেনা সরকার: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী (জামালপুরের খবর)        বাল্যবিবাহ মুক্ত ময়মনসিংহ বিভাগ ঘোষণা করায় ইসলামপুরে র‌্যালি ও মানববন্ধন (জামালপুরের খবর)        দেওয়ানগঞ্জে জাতীর পিতার জন্ম শত বার্ষিকী উপলক্ষে র‌্যালি, মানববন্ধন, গন স্বাক্ষর ও শপথ গ্রহন (জামালপুরের খবর)        কুষ্ঠ রোগীদের ওষুধ তৈরী ও বিনামূল্যে বিতরণে স্থানীয় কোম্পানীগুলোর প্রতি আহবান প্রধানমন্ত্রীর (জাতীয়)        খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্যের আসল রিপোর্ট বদলে ফেলা হচ্ছে: ফখরুল (রাজনীতি)        অভিযোগ প্রমাণে শাজাহান খানকে ফের ২৪ ঘণ্টার আল্টিমেটাম ইলিয়াস কাঞ্চনের (ঢাকা)        আওয়ামী লীগে কোনও দূষিত রক্ত থাকবে না: ওবায়দুল কাদের (রাজনীতি)      

শাহজালাল প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের ৮ নেতাকর্মীকে বহিষ্কার

Logo Missing
প্রকাশিত: 01:41:00 pm, 2019-11-04 |  দেখা হয়েছে: 5 বার।

আ.জা. ডেক্স:

সিলেটে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (শাবিপ্রবি) বাংলা বিভাগের ২০১৫-১৬ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী ও বিভাগ ছাত্রলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক রাজিব সরকারের ওপর হামলার ঘটনায় জড়িত সাত ছাত্রলীগ নেতাকর্মীকে বহিষ্কার করেছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ। অপর এক ঘটনায় শাখা ছাত্রলীগের গণশিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক আবদুর রশিদ রাসেলকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার করেছে কর্তৃপক্ষ। গত শনিবার বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত ২১৪তম সিন্ডিকেট সভায় এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। একাধিক সিন্ডিকেট সদস্য বহিষ্কারের বিষয়টি জানিয়েছেন।

সিন্ডিকেট সদস্যদের সূত্রে জানা যায়, সাত শিক্ষার্থীকে এক সেমিস্টারের জন্য বহিষ্কারের পাশাপাশি জরিমানা করা হয়েছে। একইসঙ্গে ৩০ কার্যদিবসের মধ্যে টাকা পরিশোধ না করলে আরও এক সেমিস্টার বহিষ্কারের সুপারিশ করা হয়। বহিষ্কৃত শিক্ষার্থীরা হলেন- শাবিপ্রবি ছাত্রলীগের সদস্য আশরাফ কামাল আরিফ, ইন্ডাস্ট্রিয়াল অ্যান্ড প্রোডাকশন ইঞ্জিনিয়ারিং (আইপিই) বিভাগের শিক্ষার্থী ও অ্যাপ্লায়েড সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং অনুষদ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মাহবুব আল আমিন, কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের শিক্ষার্থী ও বিভাগ শাখা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ইফতেখার আহমদ রানা, লোক প্রশাসন বিভাগের শিক্ষার্থী ও সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদ ছাত্রলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক সুমন মিয়া, একই বিভাগের শিক্ষার্থী ও একই অনুষদের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক আবদুল বারী সজীব, বাংলা বিভাগের শিক্ষার্থী ও বিভাগ ছাত্রলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক কাওসার আহমেদ সোহাগ, ইংরেজি বিভাগের শিক্ষার্থী ও ছাত্রলীগ কর্মী মো. রিশাদ ঠাকুর। এরা সবাই শাবিপ্রবি শাখা ছাত্রলীগের সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক শাখাওয়াত হোসেনের অনুসারী হিসেবে পরিচিত।

এ বছরের ২৩ মার্চ বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকে রাজীব সরকারকে হত্যার উদ্দেশ্যে ধারালো অস্ত্র ও জিআই পাইপ দিয়ে মাথা ও পিঠে আঘাত করে শাখা ছাত্রলীগের সাংস্কৃতিক সম্পাদক শাখাওয়াত হোসেনের অনুসারীরা। এরপর স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে সিলেট এম এ জি ওসমানী মেডিকেল কলেজে ভর্তি করা হয়। এ ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে ছাত্রলীগের সাত নেতাকর্মীকে বহিষ্কার করেছে কর্তৃপক্ষ। এদিকে ফরেস্ট্রি অ্যান্ড এনভারনমেন্ট বিভাগের শিক্ষার্থী ও শাখা ছাত্রলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক জাহিদ হাসান নাঈমকে ছুরিকাঘাত করার ঘটনায় শাবিপ্রবি ছাত্রলীগের গণশিক্ষা বিষয়ক সম্পাদক আবদুর রশিদ রাসেলকে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে স্থায়ীভাবে বহিষ্কার করা হয়েছে।