ঢাকা   ০৪ জুলাই ২০২০ | ২০ আষাঢ় ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
Image Not Found!

সর্বশেষ সংবাদ

  বন্যা পরিস্থিতি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সভা (জাতীয়)        স্বাস্থ্যমন্ত্রীকে সরিয়ে দেয়ার দাবি সংসদে (জাতীয়)        এইচএসসির মূল সনদ বিতরণ আজ থেকে (শিক্ষা)        ২৪ ঘণ্টায় নতুন মৃত্যু ৪১, আরও ৩৭৭৫ করোনা রোগী শনাক্ত (জাতীয়)        চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে পৃথিবী, এগিয়ে যাবো আমরাও - তথ্য প্রতিমন্ত্রী (জামালপুরের খবর)        জামালপুর পৌরসভার ২০২০-২০২১ অর্থ বছরে ১৩২ কোটি ৩৪ লক্ষ ২৪ হাজার টাকার বাজেট ঘোষনা (জামালপুরের খবর)        মেলান্দহ পৌরসভার পানি শোধানাগার নির্মাণ কাজের উদ্বোধন (জামালপুরের খবর)        মাদারগঞ্জ পৌরসভার নতুন ভবনের ভিত্তি প্রস্থর স্থাপন করলেন মির্জা আজম এমপি (জামালপুরের খবর)        জামালপুরে বন্যার পানিতে ডুবে এক শিশুর মৃত্যু (জামালপুরের খবর)        জামালপুর সদর উপজেলায় বন্যার পানিতে তলিয়ে যাচ্ছে ফসলি জমি (জামালপুরের খবর)      

শ্রীলঙ্কার প্রেসিডেন্ট হচ্ছেন রাজাপাকসের ভাই

Logo Missing
প্রকাশিত: 01:04:04 am, 2019-11-18 |  দেখা হয়েছে: 1 বার।

আ.জা. আন্তর্জাতিক:

এশিয়ার সবচেয়ে পুরনো গণতান্ত্রিক দেশগুলোর মধ্যে শ্রীলংকা অন্যতম। গত শনিবার দেশটিতে ৮ম বারের মতো প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। নানা প্রকার সহিংসতা ও অভিযোগের মধ্যে ভোট গ্রহণ শেষ করেছে দেশটির প্রশাসন। গতকাল রোববার ভোর সাড়ে ৪টায় ঘোষিত ফলাফল অনুযায়ী, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ৯টি জেলার পোস্টাল ভোটে এগিয়ে রয়েছেন সাবেক প্রেসিডেন্ট মাহিন্দা রাজাপাকসের ভাই গোতাবায়া রাজাপাকসে। গোতাবায়া বর্তমানে শ্রীলঙ্কা পিপলস ফ্রন্ট’র (এসএলপিপি) প্রধান হিসেবে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দিতা করছেন। ১০ বছরের শাসনামলে তার ভাই মাহিন্দাকে চীনপন্থী বলে জেনেছে বিশ্ব। গোতাবায়ার মূল প্রতিদ্বন্দী লিবারেল ইউনাইটেড ন্যাশনাল পার্টির (ইউএনপি) সাজিথ প্রেমাদাসা। তিনি আবার আরেক সাবেক প্রেসিডেন্ট রানাসিংহে প্রেমাদাসার ছেলে। ২০০৫ থেকে ২০১৫ সালের মধ্যে মাহিন্দা রাজাপাকসের সময় গোতাবায়া ছিলেন প্রতিরক্ষামন্ত্রী। তার বিরুদ্ধে লিবারেশন টাইগারস অব তামিল ইলম (এলটিটিআই) গেরিলাদের বিরুদ্ধে লড়াইয়ে মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগ আছে। নিরাপত্তা বাহিনীর একটি অংশ তার নির্দেশে সাদা ভ্যানে চড়ে রাজনৈতিক প্রতিপক্ষকে হত্যা করত বলে অভিযোগ আছে।

এদিকে শনিবার ৭টায় শুরু হয় শ্রীলংকার অষ্টম প্রেসিডেন্ট নির্বাচন। ১ কোটি ৬০ লাখ ভোটারের জন্য ২২টি নির্বাচনী জেলায় খোলা হয় প্রায় ১৩ হাজার ভোট কেন্দ্র। ভোটগ্রহণে ব্যবহার হয়েছে ২৬ ইঞ্চি লম্বা ব্যালট পেপার। দেশটির নির্বাচনী ইতিহাসে এবারই প্রথম এতবড় ব্যালট ব্যবহার করল নির্বাচন কমিশন। আরেক রেকর্ড হল, ক্ষমতাসীন কোনো প্রেসিডেন্ট বা প্রধানমন্ত্রীর কেউই এবার প্রার্থী হননি।  বিকাল ৫টায় ভোটগ্রহণ শেষ হওয়া পর্যন্ত ৭৯ শতাংশ ভোট পড়ে। অন্যদিকে ভোটগ্রহণ শুরুর কয়েক ঘণ্টা আগেই মুসলিম ভোটারদের বহনকারী শতাধিক বাসের বহরে হামলা চালানো হয়। ভোটার ভর্তি বাস লক্ষ্য করে অতর্কিত এলোপাতাড়ি গুলি চালায় বন্দুকধারীরা। বৃষ্টির মতো ছোড়ে পাথর।