ঢাকা   রবিবার ১২ জুলাই ২০২০ | ২৮ আষাঢ় ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
Image Not Found!

সর্বশেষ সংবাদ

  জয় পেয়ে শিরোপার আরও কাছে রিয়াল (খেলাধুলা)        বিসিবি মনোবিদ নিয়োগ দিচ্ছে ক্রিকেটারদের জন্য (খেলাধুলা)        আরো একটি সাহসী সিদ্ধান্ত ওয়েস্ট ইন্ডিজের (খেলাধুলা)        যুক্তরাষ্ট্রের প্রতি হঠাৎ চীনের নরম সুর কেন? (আন্তর্জাতিক)        মাস্ক পরতে রাজি হয়েছেন ট্রাম্প (আন্তর্জাতিক)        এমিরেটস এয়ারলাইন ৯ হাজার কর্মী ছাঁটাই করবে (আন্তর্জাতিক)        করোনার ভ্যাকসিন তৈরিতে ৩৩০০ কোটি রুপি দিলেন লক্ষী মিত্তল (আন্তর্জাতিক)        বাতাসে ভেসে বেড়ায় করোনাভাইরাস, নতুন নির্দেশিকা বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (আন্তর্জাতিক)        কোভিড-১৯: পরিবারসহ আক্রান্ত তমা মির্জা (বিনোদন)        অভিনেত্রী কোয়েল মল্লিক করোনাভাইরাসে আক্রান্ত (বিনোদন)      

ধর্ষণের অভিযোগে এসআই বাপ্পি কারাগারে

Logo Missing
প্রকাশিত: 02:17:22 am, 2020-01-04 |  দেখা হয়েছে: 1 বার।

আ.জা. ডেক্স:

বিয়ের প্রলোভন ও ভয়ভীতি দেখিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ ও ভিডিও ধারণের অভিযোগে গ্রেফতার মিরপুর মডেল থানার উপপরিদর্শক (এসআই) আবদুর রকিব খান বাপ্পিকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়েছেন আদালত। গতকাল শুক্রবার তাকে ঢাকা মহানগর হাকিম আদালতে হাজির করা হয়। এ সময় শেরেবাংলা নগর থানার দায়ের করা মামলার তদন্ত শেষ না হওয়া পর্যন্ত তাকে কারাগারে আটক রাখার আবেদন করেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা। অপরদিকে, তার আইনজীবী জামিন চেয়ে আবেদন করেন। ঢাকা মহানগর হাকিম সাদবির ইয়াসির আহসান চৌধুরী তাকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দিয়ে জামিন শুনানির জন্য ৭ জানুয়ারি দিন ধার্য করেন।

অভিযুক্ত এসআইয়ের বিরুদ্ধে মামলা করেন এক তরুণী। গত বৃহস্পতিবার রাতে ভুক্তভোগী ওই তরুণী রাজধানীর শেরেবাংলা নগর থানায় এ মামলা দায়ের করেন। মামলা নম্বর ২। মামলায় ধর্ষণের আলামত পরীক্ষার জন্য ভুক্তভোগীকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের ওয়ানস্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) পাঠিয়েছে পুলিশ।

অভিযুক্ত আবদুর রকিব খান বাপ্পি মিরপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) হিসেবে কর্মরত। তার গ্রামের বাড়ি কিশোরগঞ্জের তারাইলে। ভুক্তভোগী ওই তরুণী বলেন, বাপ্পি এসআই হিসেবে যোগ দেন আড়াই বছর আগে। কিন্তু আমাদের মধ্যকার প্রেমের সম্পর্ক গত পাঁচ বছর ধরে। এর মধ্যে তিনি একাধিকবার বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ধর্ষণ করেছেন। কিন্তু সম্প্রতি তিনি বিয়ে না করার জন্য টালবাহানা করছিলেন। তিনি বলেন, বৃহস্পতিবার সকালে তিনি আগারগাঁও এলাকার একটি বাসায় ডাকেন। সেখানে গেলে তিনি কিছু গোপন ভিডিও দেখান এবং সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়ার ভয় দেখিয়ে জোরপূর্বক ধর্ষণ করেন। সেখান থেকে আমি সোজা শেরেবাংলা নগর থানায় আসি। দিনভর তার পরিবার ও পুলিশের পক্ষ থেকে সমঝোতার চেষ্টা করে। রাতে আমি মামলা দায়ের করেছি। মামলা দায়ের হওয়ার পর অভিযুক্তকে আটক করে শেরেবাংলা থানা পুলিশ।