Sunday, June 26, 2022
Homeজাতীয়আমরা আইন ভঙ্গকারী জাতি হয়ে গেছি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

আমরা আইন ভঙ্গকারী জাতি হয়ে গেছি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

আ.জা. ডেক্স:

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেছেন, আমরা আইন ভঙ্গকারী জাতি হয়ে গেছি। প্রতিনিয়ত আইন ভঙ্গ করছি আমরা। আইন ভঙ্গ করার প্রবণতা যতদিন কমাতে না পারবো নিরাপদ সড়কের কাক্সিক্ষত লক্ষ্যে যেতে আমাদের কষ্ট হবে। গতকাল শনিবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবের আবদুল সালাম অডিটোরিয়ামে নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা) ২৮ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে সড়ক দুর্ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের মধ্যে সেলাই মেশিন বিতরণ অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন। নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা) এর প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ইলিয়াস কাঞ্চনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সচিব নজরুল ইসলাম, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ পিপিএম (বার) কমিশনার মো. শফিকুল রহমান উপস্থিত ছিলেন।

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, গাড়ি থেকে হাইড্রোলিক হর্ন খুলে ফেলার নির্দেশ দেওয়া হয়েছিল। তারপর গাড়ি চালকরার হাইড্রোলিক হর্ন খুলে ফেলেছেন। এখন তারা আবার এটা লাগিয়েছেন। আবার এ বিষয়ে কথা বলতে হবে। গভীর রাতেও গাড়ির শব্দে ঘুম ভাঙছে নগরবাসীর, পথচারীরা বিরক্ত হচ্ছে। কিংবা আমরা মোবাইল ফোনে কথা বলতে বলতে রাস্তা পার হচ্ছি। কোথায় জেব্রা ক্রসিং খোঁজ খবর নেই। নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা) ১১১টি সুপারিশ করেছিলেন উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, সে সুপারিশ বাস্তবায়নের দায়িত্ব সড়ক পরিবহন মন্ত্রী আবার আমার ঘাড়ে চাপিয়ে দিয়েছেন। এ বিষয়ে কয়েকটি মিটিং করা হয়েছে। তবে এটা বাস্তবায়ন করতে হলে এক দুই বছরে সম্ভব না। অনেক দাবি করা হয়েছে। এগুলোকে ভাগ করে স্বল্প মেয়াদী, মধ্য মেয়াদী ও দীর্ঘ মেয়াদী এভাবে না করলে বাস্তবায়ন করা যাবে না।

তিনি বলেন, ইতোমধ্যে আপনারা বাস ট্রাক চালকদের জন্য বাস ট্রাক বে এর কথা বলেছেন। আমরা দেশের নতুন সড়ক মহাসড়কে এই বাস, ট্রাক চালকদের জন্য বিশ্রামাগার করা হচ্ছে। ইউরোপসহ বিশ্বের অনেক দেশেই ৫০ কিলোমিটার পর পর রেষ্টুরেন্ট, ওয়াশ রুমসহ বিশ্রামাগার রয়েছে। তবে আমাদের জায়গা কম ১৭ কোটির মানুষের দেশ। আমরা সে রকম জায়গা চাইলেই যেতে পারবো না। বাস বে আমরা একের পর এক করবো। আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, চালকদেরও সচেতন হতে হবে। চালকরা এক টানা কত ঘণ্টা গাড়ি চালাতে পারবে। চালকদেরও বলতে হবে আমি আজ ৬ ঘণ্টা গাড়ি চালিয়েছি আমাকে আর দায়িত্ব দেবেন না। অনুষ্ঠানে সভাপতির বক্তব্যে নিসচা প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ইলিয়াস কাঞ্চন বলেন, স্বাধীনতার ৫০ বছর চলে গেছে আর ৫০ বছর পার করতে চাই না এভাবে। আমরা একটা সভ্য জাঁতি হিসাবে সম্মানিত হতে চাই বিশ্ব দরবারে। আমরা সভ্য জাতি হিসেবে বিশ্ববাসীকে দেখাতে চাই আমাদের দেশে সড়ক দুর্ঘটনা রোধ করেছি। আমরা নিয়ম মানতে শিখেছি। আইনকে শ্রদ্ধা করতে শিখেছি। তিনি বলেন, আমাদের শিক্ষার্থীদের জন্য পরিবহনে হাফ ভাড়ার পাশাপাশি পরিবহন চালক ও শ্রমিকদের সন্তানদের পড়ালেখা অবৈতনিক করা হোক। সেই সঙ্গে বেরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানেও তাদের হাফ বেতনে পড়া লেখা করানোর সুযোগ দেওয়ার দাবি জানাই। এ সময় রাজধানী ঢাকা শহরকে স্মার্ট সিটিতে পরিণত করার পরিকল্পনা রয়েছে বলে জানান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী।

আসাদুজ্জামান খান কামাল বলেন, ঢাকা শহরকে নিয়ে আমাদের একটা পরিকল্পনা রয়েছে। ঢাকাকে স্মার্ট সিটিতে পরিণত করবো। স্মার্ট সিটি করলে সবকিছু ক্যামেরার আওতায় চলে আসবে। আপনারা যেটা চাচ্ছেন, সেটা আমরা স্মার্ট সিটির মাধ্যমে করতে পারবো। তিনি বলেন, স্মার্ট সিটি একটু সময় ও ব্যয় সাপেক্ষ। আমাদের পরিকল্পনায় রয়েছে সেটা আমরা করতে যাচ্ছি। ঢাকাতে যদি আমরা সফল হতে পারি, তাহলে পরবর্তীতে চট্টগ্রাম সিটিতেও করবো সে ধরনের পরিকল্পনা রয়েছে। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমাদের সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী দিন-রাত কাজ করে যাচ্ছেন। তার অসুস্থতার জন্য একটু দেরিতে হলেও তিনি সব সময় খোঁজখবর রাখছেন যাতে রাস্তাগুলো সুন্দর একটা অবস্থানের মধ্যে আসে। প্রধানমন্ত্রীর ইচ্ছে দেশের রাস্তা সুন্দর হবে। সেই ইচ্ছে পূরণ করার জন্য তিনি কাজ করে যাচ্ছেন। তিনি বলেন, আমিও নিরাপদ সড়ক চাই, যাতে আর কোনো প্রাণ হানি না হয়। কোনো দুর্ঘটনা না ঘটে। নিরাপদ সড়ক চাই আন্দোলনের মাধ্যমে দেশের সড়ক নিরাপদ হোক এ আশাবাদ ব্যক্ত করছি।

আজকে ৫০ জনকে অনুদান হিসেবে সেলাই মেশনি দেওয়া হলো এটা সত্যিই প্রশংসনীয় উল্লেখ করে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, করোনাকালীন আপনারা তাদের সহযোগিতা করেছেন। সবাই আশঙ্কা করেছিল লাখ লাখ মানুষ কর্মহীন হয়ে যাবে, অর্থনীতি ভেঙ্গে পড়বে। কিন্তু সেটা হয়নি প্রধানমন্ত্রীর দূরদর্শিতা ও দক্ষতার কারণে। লক্ষ্য অনুযায়ী বাংলাদেশ যেখানে যেত সেখানে না যেতে পারলেও করোনার মধ্যে অর্থনীতির অবস্থান সুদৃঢ় ছিল এবং সবকিছুই সচল ছিল। এটাই হলো প্রধানমন্ত্রীর দক্ষতা ও কর্মতৎপরতা। তিনি সঠিক সময় সঠিক সিদ্ধান্ত নিতে পারেন এটাই তার জলন্ত প্রমাণ। অনুষ্ঠানে প্রতিবছরের মতো নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা) এর ২৮তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে সড়ক দুর্ঘটনায় ক্ষতিগ্রস্ত অসহায় পরিবারের জন্য কেন্দ্রীয় ও শাখা পর্যায়ে এ ধরনের ১২০টি পরিবারের কর্মসংস্থানের লক্ষ্যে ৫০টি পরিবারকে জীবিকা নির্বাহের জন্য সেলাই মেশিন দেওয়া হয়। নিরাপদ সড়ক চাই (নিসচা) এর প্রতিষ্ঠাতা চেয়ারম্যান ইলিয়াস কাঞ্চনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে সড়ক পরিবহন ও সেতু মন্ত্রণালয়ের সচিব নজরুল ইসলাম, ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (বার) কমিশনার মো. শফিকুল রহমান উপস্থিত ছিলেন।

আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী ইচ্ছে করে গুলি করতে পারে না: গতকাল শনিবার দুপুর ১২টার দিকে রাজধানীর কাওরানবাজার ঢাকা ওয়াসা ভবনের বুড়িগঙ্গা হল রুমে ‘নিম্ন আয় এলাকার জনগণের জন্য আদর্শ গ্রাহক সম্মাননা’ পুরস্কার বিতরণী অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে র‌্যাবের বর্তমান ও সাবেক ৬ কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মানবাধিকার লঙ্ঘনের অভিযোগে যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা বিষয়ে জানতে চাইলে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খান বলেন, আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর কেউ ইচ্ছে করে ক্রসফায়ার কিংবা গুলি করতে পারে না। নিষেধাজ্ঞা যে কারণে দেওয়া হয়েছে, সে পরিপ্রেক্ষিতে তিনি বলেন- আমাদের দেশে বন্দুকযুদ্ধের যতগুলো ঘটনা ঘটেছে সব ঘটনারই একটি জুডিসিয়াল ইনকোয়ারি হয়। যে ঘটনা ঘটলো তার পেছনে যথাযথ কারণ ছিল কিনা। না গাফিলতি ছিল। কোথাও গাফিলতি পেলে তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, আমেরিকান সরকার একটি নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে, এ প্রতিবেদনটি এখনো আমার টেবিলে আসেনি। এটা আমাকে দেখতে হবে, কেন এবং কি কারণে নিষেধাজ্ঞা দিয়েছে। না দেখে পুরো মন্তব্য করা সম্ভব নয়। এ সমস্ত ঘটনার পেছনে কোনো কারণ ছিল বলেই আমাদের কাছে প্রতীয়মান। এ সমস্ত ঘটনা শুধু আমাদের দেশেই নয়, বিশ্বের বিভিন্ন দেশে ঘটছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

Recent Comments