Friday, December 9, 2022
Homeআন্তর্জাতিকইউরোপে তীব্র খরায় দেখা মিলছে প্রত্নতাত্ত্বিক নিদর্শন

ইউরোপে তীব্র খরায় দেখা মিলছে প্রত্নতাত্ত্বিক নিদর্শন

আ.জা. আন্তর্জাতিক :

তীব্র খরার কবলে পড়ে ইউরোপের বিভিন্ন দেশে শুকিয়ে যাচ্ছে নদ-নদী, হ্রদ। পানির স্তর কমে যাওয়ায় দেখা মিলছে প্রত্নতাত্ত্বিক নিদর্শন ও ঐতিহাসিক সম্পদের। এর মধ্যেই এবার খরার কারণে যুক্তরাষ্ট্রের একটি নদী শুকিয়ে গিয়ে এর তলদেশে ফুটে উঠেছে ডাইনোসরের পায়ের ছাপ। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ডাইনোসরের এই পায়ের ছাপগুলো অন্তত ১১ কোটি ৩০ লাখ বছর আগের।

গত মঙ্গলবার সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাসে ডাইনোসর ভ্যালি স্টেট পার্ক নামে একটি উদ্যান রয়েছে। আর সেই উদ্যানের ভেতর দিয়ে বয়ে গেছে ‘পালাক্সি’ নদী। গ্রীষ্মের দাবদাহে শুকিয়ে গেছে নদীটির একটি বড় অংশ। আর এতেই পালাক্সি নদীর তলদেশে ফুটে উঠেছে ডাইনোসরের পায়ের ছাপ।বিশেষজ্ঞরা বলছেন, অন্তত ১১ কোটি ৩০ লাখ বছর আগের এ পায়ের ছাপগুলো ‘অ্যাক্রোক্যান্থোসরাস’ ও ‘সরোপসাইডন’ নামের দুই ধরনের ডাইনোসরের।এর মধ্যে অ্যাক্রোক্যান্থোসরাসের উচ্চতা ছিল ১৫ ফুট। আর সরোপসাইডনের আকার ছিল আরও বড়, উচ্চতায় ৬০ ফুট। এ নিয়ে এখনো গবেষণা করছেন বিজ্ঞানীরা।

ডাইনোসর ভ্যালি স্টেট পার্ক কর্তৃপক্ষ বলছে, তীব্র খরায় পালাক্সি নদীর ২০ মাইল অববাহিকার প্রায় পুরোটাই শুকিয়ে গেছে। তাই এখন পায়ের ছাপগুলো দেখা যাচ্ছে। কিন্তু অল্প দিনের মধ্যেই বৃষ্টি আসতে পারে। আর বৃষ্টি এলেই ফের পানির নিচে তলিয়ে যাওয়ার আগে ডাইনোসরের পায়ের ছাপগুলো দেখতে বহু মানুষ ভিড় জমাচ্ছেন ওই উদ্যানে। এদিকে খরা প্রকট আকার ধারণ করায় ‘স্প্যানিশ স্টোনহেঞ্জ’ নামের একটি চক্রাকার পাথর পানির ওপর ভেসে উঠেছে স্পেনে। বছরের প্রায় পুরোটা সময় পানির নিচে থাকলেও কয়েক দশকের মধ্যে সবচেয়ে মারাত্মক খরার কবলে পড়ে নদী শুকিয়ে যাওয়ায় মিলেছে এই প্রত্নতাত্ত্বিক নিদর্শনের। পানির নিচ থেকে ভেসে ওঠা পাথর চক্রটি স্পেনের মধ্যাঞ্চলীয় প্রদেশ কাসেরেসের ভালদেকানাস রিজার্ভার নামের পানি সংরক্ষণাগারের এক পাশে এখন পুরোপুরি দৃশ্যমান।

সংশ্লিষ্টরা বলছেন, ওই সংরক্ষণাগারে পানির স্তর ধারণক্ষমতার চেয়ে ২৮ শতাংশ কমে গেছে। তবে স্প্যানিশ স্টোনহেঞ্জ ভেসে ওঠায় উচ্ছ্বসিত প্রত্নতাত্ত্বিকরা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

Recent Comments