Tuesday, November 29, 2022
Homeআন্তর্জাতিকতিমির বমি বেচে কোটিপতি!

তিমির বমি বেচে কোটিপতি!

আ.জা. আন্তর্জাতিক:

সমুদ্র সৈকতের পাশেই বাড়ি। সময় কাটাতে সৈকতে হাঁটতে বেরিয়েছিলেন। তখনই সৈকতে আজব এক জিনিস দেখতে পান থাইল্যান্ডের ৪৯ বছর বয়সী এক নারী। এরপর সেই আজব জিনিস বাড়িতে নিয়ে আসেন। পরে প্রতিবেশী এবং অন্যান্যের দেখানোর পর জানতে পারেন মাছের মতো আঁশটে গন্ধ বের হওয়া এই জিনিসটি আসলে বহু মূল্যবান তিমির বমি বা অ্যামবারগ্রিস। সিরিপর্ন নিয়ামরিন নামে ওই নারী থাইল্যান্ডের নাখন সি থাম্মারাট প্রদেশের বাসিন্দা। গত ২৩ ফেব্রুয়ারি ওই তিমির বমি দেখতে পান তিনি। পরে সেটি বাড়ি নিয়ে আসেন সিরিপর্ন। কিন্তু এটা কি তিনি জানতেন না। কিন্তু প্রতিবেশীরা তাকে জানান এটি অ্যামবারগ্রিস। এরপরই সেটি পরিষ্কার করে সিরিপর্ন। তারপর ১২ ইঞ্চি পুরু এবং ২৪ ইঞ্চি লম্বা অ্যামবারগ্রিস বেরিয়ে আসে। সিরিপর্ন যে তিমির বমিটি পেয়েছেন আন্তর্জাতিক বাজারে সেটির দাম আড়াই লাখ মার্কিন ডলার বা প্রায় ২ কোটি ১৩ লাখের বেশি। অ্যামবারগ্রিস আসলে তিমির দেহেরই একটি অংশ। একে ‘ভাসমান সোনা’ এবং ‘সমুদ্রের গুপ্তধন’ও বলা হয়ে থাকে। মূলত স্পার্ম হোয়েলের শরীরেই এই জিনিসটি তৈরি হয়। সেখান থেকেই বমির মাধ্যমে এটি সমুদ্রে মিশে যায়। প্রথমে এটা থেকে মাছের মতো আঁশটে গন্ধ বের হয়। তবে পরে খুবই সুন্দর গন্ধ বের হয়। এর ফলে এটি থেকে সুগন্ধি তৈরি করা হয়। আন্তর্জাতিক বাজারে এই অ্যামবারগ্রিসের দামও অনেক বেশি।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

Recent Comments