Sunday, July 3, 2022
Homeজামালপুরপ্রেমের টানে বাংলাদেশী তরুনী ভারতে, পতাকা বৈঠক শেষে ফেরত

প্রেমের টানে বাংলাদেশী তরুনী ভারতে, পতাকা বৈঠক শেষে ফেরত

স্টাফ রিপোর্টার:

জামালপুরের বকশীগঞ্জ উপজেলায় প্রেমের টানে ভারতে চলে যাওয়া ৭ম শ্রেনী পড়ুয়া এক তরুনীকে ফেরত দিয়েছে ভারতীয় সীমান্ত রক্ষী বাহিনী (বিএসএফ)। বৃহস্পতিবার রাতে ভারত-বাংলাদেশ সীমানন্ত রক্ষী বাহিনীর পতাকা বৈঠক শেষে পুলিশের কাছে তাকে হন্তান্তর করা হয় ওই তরুনীকে। পরে পুলিশ পারিবারের কাছে ফেরত দেয় তরুনীকে।
বিজিবি সূত্রে জানা যায়, জামালপুরের দেওয়ানগঞ্জ উপজেলার পাররামরামপুর ইউনিয়নের উত্তর রহিমপুর গ্রামের মিষ্টার আলীর কন্যা মেরিনা আক্তারের (১৪) সাথে ভারতীয় সীমান্তবর্তী গ্রামের আক্তার হোসেন নামের এক ছেলের মধ্যে প্রেমের সর্ম্পক গড়ে উঠে। বৃহস্পতিবার বিকালে প্রেমের টানে বকশীগঞ্জ সীমান্ত দিয়ে ভারতে চলে যায় ওই তরুনী এবং আক্তার হোসেনকে খোঁজতে থাকে। এ সময় সন্দেহজনকভাবে ঘোরাফেরা করতে থাকায় বিএসএফ তাকে আটক করে। পরে জিজ্ঞাসাবাদে ওই তরুণী জানায় তার বাড়ী বাংলাদেশে। পরে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ) বাংলাদেশ সীমান্তরক্ষী বাহিনী বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) এর সাথে যোগাযোগের এক পর্যায়ে বকশীগঞ্জের কামালপুর সীমান্তে পতাকা বৈঠকের মাধ্যমে ফেরত দেয় মেরিনা আক্তারকে।

বিজিবি’র পক্ষে নেতৃত্বে দেন কোম্পানী কমান্ডার সুবেদার আজমল হোসেন এবং বিএসএফ’র পক্ষে নেতৃত্বে দেন এসকে বিশাল। ভারতীয় বিএসএফের কোম্পানী কমান্ডার ইন্সপেক্টর এস.কে বিশাল ধানুয়া কামালপুর বিওপি সুবেদার মোঃ আজমল হোসেনের নিকট মেরিনাকে হন্তান্তর করেন। একই সময়ে সুবেদার আজমল হোসেন মেরিনাকে বকশীগঞ্জ থানা পুলিশের এস.আই মোঃ মুন্তাজ আলীর হেফাজতে হস্তান্তর করেন। এ সময় ধানুয়া কামালপুর ইউপি সদস্য সাইফুল ইসলাম ও স্থানীয় গণমাধ্যমকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। জামালপুর ৩৫ বিজিবি’র ব্যাটালিয়নের কমান্ডিং অফিসার (সিও) লে. কর্ণেল মুনতাসির ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। বকশীগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো: শফিকুল ইসলাম সম্রাট জানান, ওই তরুনীকে তার পরিবারের কাছে ফেরত দেয়া হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

Recent Comments