Friday, May 24, 2024
Homeজাতীয়বিদেশ থেকে ধরে এনে শাস্তি দেব ওই ‘কুলাঙ্গার’কে : শেখ হাসিনা 

বিদেশ থেকে ধরে এনে শাস্তি দেব ওই ‘কুলাঙ্গার’কে : শেখ হাসিনা 

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, গার্মেন্টস শ্রমিকদের কারা উসকানি দিচ্ছে সেটা আমি জানি।  হুকুমদাতা দেশে থাকুক কিংবা বিদেশে। ডিজিটাল বাংলাদেশের সুযোগ গ্রহণ করে হুকুমজারি করে, বিদেশ থেকে ধরে এনে বাংলাদেশে শাস্তি দেব ওই কুলাঙ্গারকে। কেউ ছাড়া পাবে না।

শনিবার (৪ নভেম্বর) বিকেল ৪টার দিকে মেট্রোরেলের আগারগাঁও-মতিঝিল অংশের উদ্বোধন উপলক্ষ্যে রাজধানীর আরামবাগে আয়োজিত জনসভায় এসব কথা বলেন তিনি।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আজ গার্মেন্টেসে শ্রমিক অসন্তোষ হয়েছে। উসকানি দিয়েছে তারা (বিএনপি)। অথচ এই শ্রমিকরা দীর্ঘদিন কাজ করেছিল। বিএনপির আমলে সেই গোঁড়া থেকে শুরু করে মাত্র ৫০০ টাকা মজুরি ছিল। আওয়ামী লীগ সরকারের ১৯৯৬ আমলে পোশাক শ্রমিকদের বেতন বৃদ্ধি করা হয়েছিল। এরপর ২০০৯ সালের ক্ষমতায় আসার পরেও বেতন বাড়ানো হয়।  বিএনপি ২০০১ সালে ক্ষমতায় আসার পরে এক টাকাও বাড়ায়নি।

শ্রমিকদের উদ্দেশে তিনি বলেন, যে কারখানা আপনাদের রুটি-রুজি দেয়, শ্রম দিয়ে পয়সা কমাই করেন, সেই কারখানা ভাঙচুর করলে আল্লাহ নারাজ হবে। আপনাদের যা প্রয়োজন হয়, অসুবিধা হয় আমরা দেখি।

তিনি বলেন, বিএনপি ক্ষমতায় ছিল তখন তো কিছু করেনি। যা করেছে আওয়ামী লীগ সরকারই। আওয়ামী লীগ জানে মানুষের কষ্ট দূর করতে। অন্যের কথায় নেচে কারখানায় হামলা করে, কারখানা ভেঙে, সেখানে অস্বাভাবিক পরিবেশ সৃষ্টি করে দেশের ক্ষতি করলে নিজেরই ক্ষতি হবে। আর কারখানা বন্ধ করলে ওই গ্রামেই ফিরে যেতে হবে। বিনা কাজে জীবনযাপন করতে হবে।

সরকারপ্রধান বলেন, মজুরি কমিশন বসেছে। ধৈর্য ধরতে হবে। কারা উসকানি দিচ্ছে সেটা আমরা জানি। কিন্তু ভাঙচুরে যারা জড়িত, বিএনপিরও নেতা কর্মীদের বলব হুকুম দাতা দেশেই থাকুক কিংবা বিদেশে, আমরা ডিজিটাল বাংলাদেশ করেছি আর ডিজিটাল বাংলাদেশের সুযোগ গ্রহণ করে হুকুমজারি করে, ওই বিদেশ থেকে ধরে এনে বাংলাদেশে শাস্তি দেব। কেউ ছাড়া পাবে না।

শেখ হাসিনা বলেন, আমরা যখন মানুষের সেবায় আত্মনিয়োগ করি সেই সময় আন্দোলনের নামে আমরা কী দেখলাম! মানুষকে হত্যা করা, আগুন দিয়ে পুড়িয়ে মারা। মানুষের ওপর হামলা করা। এটাই তাদের কাজ। এটা তারা করবেই।

Most Popular

Recent Comments