Wednesday, June 29, 2022
Homeআন্তর্জাতিকমহানবীকে কটূক্তি: এবার সেই নবীন জিন্দালের বিরুদ্ধে মামলা

মহানবীকে কটূক্তি: এবার সেই নবীন জিন্দালের বিরুদ্ধে মামলা

মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) কে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যের জেরে এবার ভারতের ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক দল ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) জ্যেষ্ঠ নেতা নবীন কুমার জিন্দালের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে। অভিযুক্ত এই নেতা বিজেপির দিল্লি শাখার গণমাধ্যম প্রধান এবং মহানবীকে নিয়ে অবমাননাকর মন্তব্যের পর তাকে দল থেকে বহিষ্কার করা হয়।

এর আগে বিজেপির বরখাস্তকৃত মুখপাত্র নুপুর শর্মার বিরুদ্ধেও মামলা দায়ের করা হয়েছিল। শনিবার (১১ জুন) রাতে এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম এনডিটিভি।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) সম্পর্কে পোস্টের মাধ্যমে ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত দেওয়ার অভিযোগে মহারাষ্ট্রের পুনে শহরে বহিষ্কৃত দিল্লি বিজেপির মিডিয়া প্রধান নবীন কুমার জিন্দালের বিরুদ্ধে একটি এফআইআর নথিভুক্ত করা হয়েছে বলে শনিবার জানিয়েছে পুলিশ।

পুনের একজন কর্মকর্তা জানিয়েছেন, স্থানীয় বাসিন্দা জাকির ইলিয়াস শেখের দায়ের করা অভিযোগের ভিত্তিতে শহরের কোন্ধওয়া থানায় নবীন কুমার জিন্দালের বিরুদ্ধে মামলাটি নথিভুক্ত করা হয়েছে।

তিনি বলেন, ‘মামলার অভিযোগে বলা হয়েছে, গত ১ জুন মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) সম্পর্কে বিতর্কিত টুইট করে মুসলমানদের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করেছেন নবীন জিন্দাল। আর অভিযোগের ভিত্তিতেই নবীন কুমার জিন্দালের বিরুদ্ধে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।’

এনডিটিভি জানিয়েছে, দায়েরকৃত মামলায় নবীন কুমার জিন্দালের বিরুদ্ধে ভারতীয় দণ্ডবিধির (আইপিসি) ধারা ১৫৩-এ (দাঙ্গা সৃষ্টির উদ্দেশ্যে উস্কানি দেওয়া), ১৫৩-বি (জাতীয় সংহতির পক্ষে ক্ষতিকারক বক্তব্য দেওয়ার অভিযোগ), ২৯৫-এ (যেকোনো শ্রেণীর ধর্মীয় অনুভূতিকে ক্ষুব্ধ করার উদ্দেশ্যে ইচ্ছাকৃত এবং বিদ্বেষপূর্ণ কাজ) করার অভিযোগ আনা হয়েছে।

এছাড়া ধর্ম বা ধর্মীয় বিশ্বাসের অবমাননা করায় ভারতীয় দণ্ডবিধির ২৯৮ (ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত করার ইচ্ছাকৃত অভিপ্রায়ে শব্দ উচ্চারণ করা ইত্যাদি) এবং ৫০৫-দুই (জনসাধারণের উদ্দেশে উস্কানিমূলক বিবৃতির) অভিযোগও আনা হয়েছে জিন্দালের বিরুদ্ধে।

এর আগে চলতি মাসের শুরুতে নবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) কে নিয়ে বিতর্কিত মন্তব্যের দুই সপ্তাহ পর ভারতের ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক দল ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) বরখাস্তকৃত মুখপাত্র নুপুর শর্মার বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়। সমাজের শান্তি বিনষ্ট, অস্থিতিশীলতা তৈরি এবং বিদ্বেষ ছড়ানোর দায়ে বিজেপির এই নেতা ছাড়াও আরও কয়েকজনের বিরুদ্ধে গত সপ্তাহে দিল্লি পুলিশ এই মামলা দায়ের করে।

এনডিটিভি সেসময় জানায়, বিজেপির সাবেক মুখপাত্র নুপুর শর্মা, একজন সাংবাদিক, সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমের কয়েকজন ব্যবহারকারী এবং ধর্মীয় বিভিন্ন সংগঠনের সদস্যদের বিরুদ্ধে দুটি এফআইআর দায়ের করা হয়েছে।

এছাড়া মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) সম্পর্কে অবমাননাকর মন্তব্য করার অভিযোগে সাবেক বিজেপি মুখপাত্র নুপুর শর্মার বিরুদ্ধে এই মাসের শুরুতে কোধোয়া থানায় একটি এফআইআর নথিভুক্ত করা হয়। পুনে মিউনিসিপ্যাল ​​কর্পোরেশনের (পিএমসি) সাবেক কর্পোরেটর আবদুল গফুর পাঠান অভিযুক্ত নুপুর শর্মার বিরুদ্ধে মামলাটি দায়ের করেছিলেন।

উল্লেখ্য, ভারতের কট্টর হিন্দুত্ববাদী রাজনৈতিক দল ভারতীয় জনতা পার্টির (বিজেপি) সাবেক মুখপাত্র নুপুর শর্মা এক টেলিভিশন শোতে অংশ নিয়ে মহানবী হযরত মুহাম্মদ (সা.) সম্পর্কে বিতর্কিত ওই মন্তব্য করেছিলেন। পরে দলটির নয়াদিল্লি শাখার গণমাধ্যম প্রধান নবীন জিন্দালও নুপুর শর্মার মন্তব্যের সমর্থনে টুইট করেন।

তাদের এই মন্তব্য দেশটির সংখ্যালঘু মুসলিম সম্প্রদায়কে ক্ষুব্ধ করে তোলে। এমনকি অভিযুক্তদের মন্তব্যের জেরে ভারতের কয়েকটি রাজ্যের মুসলিমরা বিক্ষিপ্তভাবে প্রতিবাদ বিক্ষোভ করেন। আর এর রেশ ভারতের গণ্ডি ছাড়িয়ে বাইরের বিশ্বে ছড়িয়ে পড়ে।

অবশ্য এরপরই অনেকটা নড়েচড়ে বসে বিজেপি। পরিস্থিতি বিবেচনায় বিজেপি গত রোববার অভিযুক্ত নুপুর শর্মাকে বরখাস্ত এবং জিন্দালকে বহিষ্কার করা করে। এমনকি পরে বিজেপির এই দুই নেতা প্রকাশ্যে ক্ষমা চেয়ে বিবৃতিও দিয়েছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

Recent Comments