Friday, January 27, 2023
Homeজামালপুরমাদারগঞ্জে সরকারী খাদ্য গুদামে ধান দিতে আগ্রহ নেই কৃষকদের

মাদারগঞ্জে সরকারী খাদ্য গুদামে ধান দিতে আগ্রহ নেই কৃষকদের

মাদারগঞ্জ সংবাদদাতা: চলতি আমন মৌসুমে ২০২২-২০২৩ অর্থ বছরে সরকারী খাদ্য গুদামে সরকারী ভাবে ধান চাল সংগ্রহ শুরু হলেও এ পর্যন্ত
কৃষকদের ধান দেওয়ার কোন সাড়া মেলেনী মাদারগঞ্জ খাদ্য গুদামে ধান সংগ্রহে শূন্যে রয়েছে । বর্তমানে খোলা বাজারে ধান চালের দাম বেশী পাওয়ায় কৃষকরা সরকারী গুদামে ধান সরবরাহ করেননী। যার ফলে মাদারগঞ্জ খাদ্য গুদামে সরকারী ভাবে আমন ধান ক্রয় অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে। গত বছরের ২৭/১২/২০২২ ডিসাম্বর থেকে সরকারী ভাবে ধান চাল সংগ্রহ অভিযান শুরু হয়েছে। কিন্তু খোলা বাজারে ধান চালের দাম বেশী হওয়ায় কৃষকরা ধান খোলা বাজারেই বিক্রি করছে। উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক অফিস সূত্রে জানা গেছে,চলতি আমন মৌসুমে মাদারগঞ্জ সরকারী খাদ্য গুদামে ধান প্রতি কেজি ২৮টাকা ও চাল ৪২টাকা দরে ৮৪৭ মে,টন ধান ক্রয়ের লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। এখন পর্যন্ত ১ মন ধানও ক্রয় করতে পারেনী খাদ্য গুদাম। মাদারগঞ্জ উপজেলা কৃষক প্রতিনিধি জানান, সরকারী দরের চেয়ে খোলা বাজারে দাম অনেক বেশী।বর্তমানে বাজারে মোটা ধান প্রতি কেজি ৩২টাকা আর মোটা চাল প্রতি কেজি ৫০ টাকা ও চিকন চাল প্রতি কেজি ৬৪ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এ অবস্থায় সরকারী গুদামে ধান চাল দিলে লোকসান গুনতে হবে কৃষকদের। তাই কৃষকরা সরকারী খাদ্য গুদামে ধান দিতে আগ্রহী নন। এমন কি, মিল মালিকরাও খাদ্য গুদামে চাল দিতে আগ্রহী না। তবে সরকার যদি বিষয়টি বিবেচনা করে মূল্য পূণনির্ধারণ করেন তাহলে কৃষকরা গুদামে ধান দিতে আগ্রহী হতেপারেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

Recent Comments