Friday, February 3, 2023
Homeশিক্ষা‘রাজাকার-যুদ্ধাপরাধীরা কীভাবে এদেশে রাজনীতি করে’

‘রাজাকার-যুদ্ধাপরাধীরা কীভাবে এদেশে রাজনীতি করে’

জামায়াতে ইসলামীর উদ্দেশে শহীদ বুদ্ধিজীবী ডা. আলিম চৌধুরীর কন্যা ডা. নুজহাত চৌধুরী বলেছেন, রাজাকার-যুদ্ধাপরাধীরা কীভাবে এদেশে রাজনীতি করে? যাদের হাতে আমাদের পিতার রক্ত, তাদের রাজনীতি করার অধিকার এদেশে নেই। তারা নামে-বেনামে এখন দল খুলছে। সাপ কি খোলস বদলালেই পাল্টে যায়? 

বুধবার (১৪ ডিসেম্বর) জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে (জবি) শহীদ বুদ্ধিজীবী দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন।

ডা. নুজহাত চৌধুরী বলেন, আমরা এমনো দেখেছি—শহীদ বুদ্ধিজীবীদের অবদানকে প্রশ্নবিদ্ধ করা হচ্ছে। কেন শহীদদের সংখ্যাকে প্রশ্নবিদ্ধ করা হয়? খালেদা জিয়া নিজের একটি বক্তব্যে শহীদদের সংখ্যাকে প্রশ্নবিদ্ধ করেছেন। এ ধরনের নির্লজ্জ রাজনীতির বিরুদ্ধে দাঁড়াবেন। জয় বাংলা আমাদের সবার স্লোগান। বঙ্গবন্ধুকে অস্বীকার করে কোনো রাজনীতি হতে পারে না, মুক্তিযুদ্ধকে অস্বীকার করে কোন রাজনীতি হতে পারে না। 

শহীদ পিতার স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে কান্নাবিজড়িত কণ্ঠে তিনি বলেন, পিতার হত্যাকারীকে মন্ত্রী দেখতে আপনার কেমন লাগবে? যে পতাকার জন্য আমাদের পিতারা জীবন দিয়েছেন, সেই পিতার হত্যাকারী নিজামী-মুজাহিদদের গাড়িতেই পতাকা তুলে দিয়েছেন খালেদা জিয়া। আমার মা কোর্টে দাঁড়িয়ে নিজামীর দিকে তাকিয়ে বলেছিলেন—ইনি আমার স্বামীর খুনি। 

সভাপতির বক্তব্যে বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ (ভারপ্রাপ্ত উপাচার্য) অধ্যাপক ড. কামালউদ্দীন বলেন, আজকে বঙ্গবন্ধুকন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আছেন বলেই আজকে আপনারা ইতিহাসগুলো সঠিকভাবে জানতে পারছেন। 

এদিকে বুদ্ধিজীবীদের স্মরণে সকাল ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের শান্ত চত্বরে নাট্যকলা বিভাগের উদ্যোগে ‘স্যার একটু বাইরে আসবেন’ শিরোনাম একটি নাটক প্রদর্শিত হয়।

এর আগে শহীদ বুদ্ধিজীবী স্মরণে বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে রায়েরবাজার বধ্যভূমিতে পুষ্পস্তবক অর্পণ করে শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন করা হয়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular

Recent Comments